চীন মহাকাশে ইতিহাস তৈরি করলো

চীন মহাকাশে ইতিহাস তৈরি করলো

আন্তর্জাতিক রিপোর্ট

ইতিহাস তৈরি করে চাঁদের অন্ধকার পিঠে চীনের পাঠানো মহাকাশযান চ্যাং ই ৪ সাফল্যের সঙ্গে অবতরণ করল। বিশ্বের প্রথম দেশ হিসাবে চীন এই যোগ্যতা অর্জন করল। এর ফলে চন্দ্র গবেষণায় নতুন দিক খুলে গেল বলে মনে করছে মহাকাশ বিজ্ঞানীরা। জানা গেছে, চীনের পাঠানো মহাকাশযান চাঁদের সাউথ পোলের এইটকেন বেসিনে অবতরণ করেছে। চাঁদের এই অংশটি অদেখা৷ পৃথিবী থেকে সবসময়ে চাঁদের একটি দিকই দেখতে পাওয়া যায়। তাই চাঁদের উল্টো পিঠ অর্থাৎ অন্ধকারাচ্ছন্ন দিকে কী আছে তা জানতে উৎসুক সবাই। গবেষণা করে বিজ্ঞানীরা জানিয়েছে, চাঁদের গায়ে বড় ও গভীর গর্তগুলি এই অংশে অবস্থিত। এখনও অবধি চাঁদের এই অংশটি বিজ্ঞানীদের কাছে অজানা ছিল। কিন্তু এদিন চীনের চন্দ্রযান সাফল্যের সঙ্গে সেখানে অবতরণ করায় সেই রহস্যের উপর থেকে পর্দা উঠতে চলেছে। প্রথমে চীনের চন্দ্রচান চ্যাং ই ৪-এর সফল অবতরণ নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হয়। চীনা সরকার নিয়ন্ত্রিত সংবাদমাধ্যমে চীনা ডেইলি ও সিজিটিএম প্রথমে ট্যুইট করে পরে তা মুছে দেয়। তার দু’ঘণ্টা পর সরকারি ভাবে এই খবরের সত্যতা স্বীকার করে নেওয়া হয়। চন্দ্র গবেষণায় নিঃসন্দেহে এটি একটি বড় মাইলস্টোন।

শেয়ার করুন