খোলা কলাম

সাভারের সিটি বিশ্ববিদ্যালয় মানেই শান্তি ও সৌন্দর্য

খাদেমুল আজাদ :

সাভারের সিটি বিশ্ববিদ্যাল মানেই শান্তি ও সৌন্দর্য। বিশাল যায়গা নিয়ে অবস্থিত ঢাকা   সাভারের সিটি বিশ্ববিদ্যালয়।এ যেন এক  প্রাকৃতিক দৃশ্য।যে  কোন মানুষকে আকৃষ্ট করবে। সিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা ক্যাম্পাসকে   আগলে রেখেছে পরম  মমতা ও ভালোবাসায়। ক্যাম্পাসের  বহু অনুষ্ঠানের স্মৃতি,এই ক্যাম্পাস পরিবারের প্রত্যেকের  কাছে এক আবেগের স্থান।ক্যাম্পাসের দক্ষিণ –পশ্চিমে বিশাল যায়গা জুড়ে প্রতিটি হল ৩,৫,৪,৫ তলা বিশিষ্ট আর এই  সুদৃশ্য চারটি হলের পরিবেশ যেন যে কোনো মানুষের মনে করা নাড়বে।এর চারপাশে গাছগাছালির সাড়ি-সুউচ্চ পাকা ঘেষোঁ-জাম- কাঁঠালসহ  ফলের গাছ ক্যাম্পাসকে গৌরব দান করেছে।বিশ্ববিদ্যালয়ের মাঠ,হল ও ক্যাম্পাসের  মূলগেটের একটু দূরে আমড়া,ঝালমাখানো আনারস,আর ঝালমুড়ি না খেলেই নয়,যেন আমড়া,ঝালমাখানো আনারস,আর ঝালমুড়িই টেনে নিয়ে যায় ও আর একটি কথা তো বলতে ভুলেই গিয়েছিলাম! যাক  বলি তা হল ক্যাম্পাসের কফি আর চা না খেয়ে কোথায়? আর হলের খাবারের কথা? শুয়ে  থেকে খাবার মানে সকালে ঘূম থেকে ঊঠে ব্রেড,কলা, ডিম হাজীর আর  বাকী থাকে খাওয়াটা। খাবার নিয়েও যেন কারও কোন পরশ্রীকাতরতা নেই।আর যাতায়াত ব্যবস্থার জন্য রয়েছে প্রায় ১৮ টি বাস। আর ক্যাম্পাসের একটু পাশে সেখানেও আছে বহু প্রাচীন  বৃক্ষরাজির  অনিন্দ্য সুন্দর এক  দৃশ্য।এসব গাছ ও তরুলতায় অসংখ্য পাখির কলরব এখানকার আরেক আনন্দের দিক।এই  বিস্তৃত পলি মাটিতে অজস্র ফুল,ফল-ঔষধি বৃক্ষের সমাবেশে প্রাকৃতিক দৃশ্যের এক অনুপম সৌন্দর্য সৃষ্টি করেছে। একাডেমিক ভবনের সামনে মহান ভাষা শহীদের স্মরণে নির্মিত শহীদ মিনার মাতৃভাষার প্রতি শ্রদ্ধা জাগায়। প্রতিষ্ঠাতা মহোদয়ের উপস্থিতি আমাদের হৃদয়ের পবিত্র  সৌন্দর্য জাগায়।

Related Articles