অপরাধ ও দূর্নীতিসারাদেশ

স্বামীর সামনে স্ত্রীকে গণধর্ষণ,গ্রেফতার -৬

নিজস্ব প্রতিবেদক,ঢাকা :

ঢাকার আদুরে,সাভারের আশুলিয়ায় স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগে ৬ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ওই নারীকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে(ও সি সি) ভর্তি করা হয়েছে।গতকাল সোমবার ৪(ডিসেম্বর) দিবাগত  রাত আনুমানিক ১০ টার সময় আশুলিয়ার  নরসিংহপুরের সোনা  মিয়া মার্কেট  এলাকা থেকে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়।এর আগে রোববার   গভীর রাতে একই এলাকার নাসির নামে এক ব্যক্তির বাড়ি থেকে ভুক্তভোগী ওই নারী ও তার স্বামীকেএকটি কক্ষে আটক রাখা অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ।গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- নরসিংহপুর এলাকার বাসিন্দা জাহিদুল ইসলাম (২৩), একই এলাকার আজাদ হোসেন (২৫), রানা সরকার (২৯), কোণাপাড়া এলাকার রবিউল শেখ (২১),রুবেল (২৩) ও ঘোষবাগ এলাকার সাগর হোসেন (২৫)। তবে রজব নামে জড়িত একজন পলাতক রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।আশুলিয়া থানার উপ পরিদর্শক (এসআই ) ফজিকুল ইসলাম বলেন, রোববার সন্ধ্যায় নরসিংহপুর সোনা মিয়া মার্কেট এলাকায় বন্ধুর বাড়িতে গার্মেন্টকর্মী স্ত্রীকে নিয়ে বেড়াতে যায় তার স্বামী। এ সময় ইয়ারপুর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য তাহের মৃধার ম্যানেজার রজন, তার সঙ্গী রবিউলসহ সাতজন ওই দম্পতিকে আটকে তারা স্বামী-স্ত্রী কি না, সে ব্যাপারে জানতে চায়।’ওসি আরও বলেন,‘পরে সোনা মিয়া মার্কেট এলাকার নাসিরের বাড়িতে স্বামী ও স্ত্রীকে পৃথক কক্ষে আটকে রাখা হয়। এ সময় রাজনসহ তার সঙ্গীরা গভীর রাত পর্যন্ত গার্মেন্টকর্মী ওই নারীকে একটি কক্ষে আটকে ধর্ষণ করে। পরে ভুক্তভোগী পরিবারের নিকট মুঠোফোনে ওই দম্পতির মুক্তিপণ হিসেবে ২০ হাজার টাকা দাবি করে ধর্ষণকারীরা।’এ ঘটনায় পরিবারের পক্ষ থেকে রোববার দিবাগত রাত ১টার দিকে আশুলিয়া থানায় অভিযোগ করা হলে মুক্তিপণের টাকা প্রদানের শর্তে ফাঁদ পাতে পুলিশ। পরে রোববার গভীর রাতে সোনা মিয়া মার্কেট এলাকায় রবিউল ও রুবেল মুক্তিপণের টাকা নিতে আসলে তাদের হাতেনাতে আটক করে পুলিশ।পরে আটকদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে সোমবার দিবাগত রাতে সোনা মিয়া মার্কেট সংলগ্ন ইয়াপুর ইউনিয়নের সাত নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য তাহের মৃধার অফিস থেকে এ ঘটনায় জড়িত আরও ৪ জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।ইতিমধ্যে এ ঘটনায় আশুলিয়া থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

Related Articles